পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধিতে রংপুরে দোকানে দোকানে ক্রেতাদের ভিড়

Published: Tue, 15 Sep 2020 | Updated: Tue, 15 Sep 2020

মাহির খান, রংপুর : হঠাৎ করে ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানির উপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করায় বাংলাদেশের পেঁয়াজের বাজারে আগুন লেগেছে। এই সময়কে কাজে লাগিয়ে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী ও আড়ৎদার চড়া দামে বিক্রি শুরু করেছে পেঁয়াজ।

একে তো মঙ্গলবার (১৫ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে যেমন খুশি তেমন দাম হাঁকাচ্ছেন ব্যবসায়ীরা ক্রেতারাও আরো দাম বাড়ার ভয়ে ছুটছে পেঁয়াজের বাজারে। এমন দৃশ্য দেখা গেল রংপুর নগরীর সবচেয়ে বড় বাজার সিটি কাঁচা বাজারে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, যে পেঁয়াজ গতকালও ছিল ৪০-৪৫ টাকা কেজি। সে পেঁয়াজ আজ বিক্রি হচ্ছে ৭৫-৮০ টাকা কেজিতে। তবুও যেন থেমে নেই ক্রেতারা। 

এখানেই শেষ নয়, পেঁয়াজের দাম আরো বাড়তে পারে এমন সংবাদ পুরো নগরীতে ছড়িয়ে পড়লে ক্রেতাদের পেঁয়াজ কিনতে দৌড়ঝাঁপ শুরু হয়। 

এমন সময় পেঁয়াজের বাজার স্থিতিশীল রাখতে রংপুর ভোক্তা অধিদপ্তর ও র‌্যাবের যৌথ অভিযান শুরু হলে অনেক ব্যবসায়ী দোকান রেখেই সটকে পড়ে। যারাও আবার দোকানে আছেন তারা ২ কেজির বেশী পেঁয়াজ বিক্রি করছেন না।  

রংপুর নগরীর জুম্মাপাড়া থেকে আসা ফরিদা বেগম জানান, পাশের বাড়ির এক ভাইয়ের কাছে শুনলাম পেঁয়াজের দাম বাড়তে পারে। তাই বেশী করে নেয়ার জন্য আসলাম। কিন্তু এখন তো আর ২ কেজির বেশী পেঁয়াজ দিচ্ছে না। 

নগরীর কামার পাড়ার রিক্সা চালক জয়নাল জানান, ম্যাজিস্ট্রেট দেখে পেঁয়াজ কিনতে আসলাম। স্যাররা চলে গেলে আবারো দাম বাড়বে পেঁয়াজের।

সিটি বাজার ব্যবসায়ী হারুন জানান, বেশী দামে নিয়ে আসলো তো বেশী দামেই বিক্রি করতে হবে আমাদের। না হলে আমরা চলবো কীভাবে। 

এদিকে রংপুর ভোক্তা অধিদপ্তরে উপ পরিচালক জাহেদুল ইমাম জানালেন, আমরা সকালে শুনতে পাই অহেতুক কারণে ব্যবসায়ীরা পিয়াজের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে তাই র‌্যাবকে সাথে নিয়ে অভিযান পরিচালনা করছি। এখানে আসার পরে অনেক ব্যবসায়ী তাদের দোকান থেকে সটকে পড়েছে। আমাদের এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ও/এসএ/